cplusbd

নিউজটি শেয়ার করুন

বোয়ালখালীতে গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

1st Image

বোয়ালখালী প্রতিনিধি (২০১৯-০১-২৩ ০৭:০৪:৪৬)

বোয়ালখালীতে উম্মে সালমা ইমু (২৩) নামের এক গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। অাজ ২৩ জানুয়ারি বুধবার বিকেলে উপজেলার পূর্ব কধুরখীল ইমাম নগর গ্রামের এ ঘটনা ঘটে।

নিহত উম্মে সালমা ইমু পূর্ব কধুরখীল ৭নং ওয়ার্ডের প্রবাসী আবু ছৈয়দের স্ত্রী। একই ইউনিয়নের দক্ষিণ কধুরখীল ৪নং ওয়ার্ডের নুর মোহাম্মদের মেয়ে ইমুর গত এক বছর আগে তাদের বিয়ে হয়েছিলো। বিয়ে পর আবু ছৈয়দ বিদেশ পাড়ি জমান। গত ১ মাস ২২দিন আগে তিনি দেশে ফিরেন বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা। নিহতের শ্বাশুড়ি ফেরদৌস বেগম বলেন, সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ঘরে সিলিং ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পায় ইমুকে। গৃহবধুর বড় ভাই কামরুজ্জামান সোহেল জানান, বুধবার সকাল ৮টার দিকে ইমু মায়ের সাথে ফোনে কথাও বলেছিলো। এরপর দুপুরে এলাকাবাসীর থেকে খবর পেয়ে এ ঘটনা জানতে পারি। ঘটনার সময় ইমুর শ্বাশুড়ি ও স্বামী আবু ছৈয়দ বাড়িতে ছিলো। ঘটনার পর থেকে আবু ছৈয়দ পলাতক রয়েছেন।

বোয়ালখালী থানার উপ-পরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন বলেন, গৃহবধুর গলায় ওড়না পেচানো অবস্থায় সিলিং ফ্যানের সাথে ফাঁস লাগানো ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হচ্ছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন হাতে পেলে বিস্তারিত বলা যাবে। তদন্ত চলছে।

NH

কর্ণফুলী সরকারি কলেজে বার্ষিক ক্রীড়া সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার উদ্বোধন নূর হোসেন মামুন, কাপ্তাই রাঙামাটি জেলার কাপ্তাইয়ের ঐতিহ্যবাহী কর্ণফুলী সরকারি কলেজ মাঠ প্রাঙ্গনে বুধবার সকালে উৎসবমূখর পরিবেশে পাঁচদিন ব্যাপী ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করা হয়েছে। কর্ণফুলী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ এ.এইচ.এম বেলাল চৌধুরীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্হিত থেকে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন কাপ্তাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশ্রাফ আহমেদ রাসেল। এসময় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, কলেজের দাতা সদস্য ও ওয়াগ্গা টি লিমিটেডের পরিচালক খোরশেদুল আলম কাদেরী, কলেজের প্রাক্তন অধ্যক্ষ মো. রফিক উল্ল্যাহ, কলেজের উপাধ্যক্ষ সিরাজ উদ্দিন, অধ্যাপক বিপুল বড়ুয়া সহ অারও অনেকে। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন, অধ্যাপক সুলতানা রাজিয়া। কর্ণফুলী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ এ.এইচ.এম বেলাল চৌধুরী জানান, খেলাধুলা মানষের মন ও শরীরকে ভালো রাখে। পড়ালেখার পাশাপাশি অামরা প্রতি বছরই ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার অায়োজন করে থাকি। এসব অায়োজনের ফলশ্রুতিতে অামাদের কলেজের শিক্ষার্থীরা, জেলা, বিভাগ সহ জাতীয় পর্যায়ে কৃতিত্ব অর্জন করতে সক্ষম হয়ে থাকে। এবারের প্রতিযোগিতায় বিভিন্ন ইভেন্টে প্রায় শতাধিক প্রতিযোগী স্বঃস্ফুর্তভাবে অংশ নিচ্ছে। অাশা করি, এসব অায়োজন সরকারের ভাবমুর্তিকে অারও বেশি উজ্জল করতে সক্ষম হবে।